1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. dbcjournal24@gmail.com : ডিবিসি জার্নাল ২৪ : ডিবিসি জার্নাল ২৪
বাগমারা'য় মেছের আলীর কষ্ট লাঘব করলো আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতি - ডিবিসি জার্নাল২৪
শুক্রবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:৪০ পূর্বাহ্ন

Categories

বাগমারা’য় মেছের আলীর কষ্ট লাঘব করলো আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতি

  • আপডেট করা হয়েছে শনিবার, ৫ নভেম্বর, ২০২২
  • ৩২ বার পড়া হয়েছে

বাগমারা প্রতিনিধি

রাজশাহীর বাগমারায় মানবতার সেবায় অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতি ও আঁত-তাবারা মডেল হাসপাতাল। ২০১৪ সালে আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতি সমবায়ের রেজিস্ট্রেশন প্রাপ্ত হয়। রেজিস্ট্রেশন পাওয়ার পর থেকেই মানবতার সেবার কাজ শুরু করেন। সমাজের পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর সেবায় শুরু থেকেই কাজ করে যাচ্ছেন আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতি।

আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতি মূলত শিক্ষক-কর্মচারীদের মাঝে স্বল্প মুনাফার মাধ্যমে বিভিন্ন ব্যান্ডের নির্মাণ সামগ্রী সরবরাহ করেন থাকেন। সেবার মানষিকতায় বৃদ্ধির করার লক্ষ্যে আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতির পক্ষ থেকে ২০১৯ সালে ভবানীগঞ্জের প্রাণকেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে আঁত-তাবারা মডেল হাসপাতাল। প্রতিষ্ঠানটি শুরুতে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা প্রদানের মাধ্যমে চিকিৎসা সেবা কার্যক্রম আরম্ভ করেন। সেই সাথে গরীর, দুস্থ, অসহায় ও প্রতিবন্ধী রোগীদের জন্য রয়েছে বিশেষ ছাড়ে চিকিৎসা সেবার ব্যবস্থা।

শনিবার ৫১ তম জাতীয় সমবায় দিবস উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতি ও আঁত-তাবারা মডেল হাসপাতালের পক্ষ থেকে প্রতিবন্ধী মেছের আলীকে আনুষ্ঠানিক ভাবে একটি হুইল চেয়ার প্রদান করা হয়েছে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাইদা খানম, ভাইস চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান আসাদ, আত-তিজারা কর্মচারী সমবায় সমিতির পরিচালক আব্দুল হালিম, আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতির ব্যবস্থাপনা পরিচালক মুশফিকুর রহমান। মেছের আলীর বাড়ি উপজেলার অনন্তপাড়া গ্রামে। ছোট থেকেই তিনি শারীরিক প্রতিবন্ধী। প্রতিবন্ধী মেছের আলীর বয়স প্রায় ৭০ বছর। একটি হুইল চেয়ারের অভাবে অনেক কষ্ট করে পরিবারের লোকজন তাকে দেখাশোনা করতেন। আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতির দেয়া হুইল চেয়ার মেছের আলীর পরিবারের সদস্যের দুঃখ কিছুটা লাঘব করবে।

এদিকে আঁত-তাবারা কর্মচারী সমবায় সমিতি ও আঁত-তাবারা মডেল হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মুশফিকুর রহমান বলেন, আমরা আত্মমানবতার উদ্দেশ্য নিয়ে শুরু থেকে কাজ করে যাচ্ছি। বিভিন্ন সময় সমাজের পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জীবন মান উন্নয়নে সেবা দিয়ে থাকি। সমবায় সমিতি ও হাসপাতালের মাধ্যমে সেবা বঞ্চিত মানুষের কাছে সেবা নিয়ে পৌঁছে গেছি। আমাদের সেবাকে মানুষের দৌড় গোড়ায় পৌঁছে দেয়ার জন্য সকলের সহযোগিত কামনা করছি।

শেয়ার করুন

কমেন্ট করুন

আরো সংবাদ পড়ুন